ঢাকা ০৩:৩৬ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी
ব্রেকিং নিউজ ::
রমাজান মাস উপলক্ষে আগামী ১২ই মার্চ থেকে ৭১ নিউজ বিডির হোম পেজে লাইভ টিভি চালু হবে। ৭১ নিউজ টিভিতে সাহরি এবং ইফতারের আগে লাইভ ইসলামী অনুষ্ঠান ও আযান সম্প্রচার করা হবে।

এশিয়া কাপের সুপার ফোরে ভারত

ক্রীড়া ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৬:৪৫:৩৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৩৫৭ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে নেপালকে ১০ উইকেটে হারিয়ে এশিয়া কাপের সুপার ফোরে উঠেছে ভারত। বৃষ্টির কারণে ভারত-পাকিস্তান মহারণ ভেস্তে গিয়েছিল। নেপালের বিপক্ষেও সেই আশঙ্কা ছিল। কাট-অফ সময়ের ৫ মিনিট আগে খেলা শুরু করেন আম্পায়ারেরা।

প্রথমে ভারতের সামনে টার্গেট ছিল ৫০ ওভারে ২৩১ রান। পরে বৃষ্টির কারণে লক্ষ্য কমে দাঁড়ায় ২৩ ওভারে ১৪৫ রান। আরামসে সেই রান তুলে ফেলেনে রোহিত শর্মারা। ফলে ৩ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপ এ থেকে দ্বিতীয় দল হিসেবে সুপার ফোরে গেলো ভারত। এই গ্রুপ থেকে প্রথম দল হিসেবে জায়গা করেছে পাকিস্তান। আর পাকিস্তানের পরে এবার ভারতের কাছে হেরে এশিয়া কাপ থেকে বিদায় নিলো নেপাল।

নবাগত নেপাল আগে ব্যাটিং করে ভারতের বোলিং লাইনের বেশ ভালো পরীক্ষা নেয়। নির্ধারিত ৫০ ওভারের মধ্যে ৪৮.২ ওভার ব্যাটিং করে। সবকটি উইকেট হারিয়ে ২৩০ রান তোলে। বৃষ্টি বাধায় পরিধি ছোট আসা ম্যাচে ভারতের সামনে ২৩ ওভারে ১৪৫ রানের লক্ষ্য দাঁড়ায়। দুই ওপেনার রোহিত শর্মা ও শুভমান গিল জুটিতেই জয় নিশ্চিত করে ভারত।

রোহিম-গিলের জুটি ২০.১ ওভার ব্যাটিং করে ১৪৭ রানে জয়ের বন্দরে তরী নোঙর করে। রোহিত ৫৯ বলে ৭৪ এর শুভমান ৬২ বলে ৬৭ রানে অপরাজিত ছিলেন। নেপালের বোলাররা কোনো সফলতা পাননি।

এর আগে সোমবার (৪ সেপ্টেম্বর) শ্রীলঙ্কার পাল্লেকেলেতে সর্বোচ্চ সাত বারের এশিয়া কাপ জয়ী ভারতের সামনে ফাইটিং স্কোর দাঁড় করায় নবাগত নেপাল। উদ্বোধনী জুটিতে কুশাল ভারতেল ও আসিফ শেখ মিলে তোলেন ৬৫ রান। শেষ পর্যন্ত সবকটি উইকেট হারিয়ে নেপাল থামে ২৩০ রানে।

দুই ওপেনারের মধ্যে আসিফ ফিফটির দেখা পান। আউট হন ৫৮ রানে। আরেক ওপেনার কুশাল ৩৮ রান করেন। এছাড়া কামি ৪৮, দীপেন্দ্র ২৯ ও গুলশান ২৩ রান করেন।

ভারতের হয়ে বল হাতে জাদেজা ৪০ রানে ৩টি উইকেট নেন। মোহাম্মদ সিরাজ ৬১ রানে ৩টি শিকার করেন। এছাড়া শামি, পান্ডিয়া ও শার্দুল ঠাকুর একটি করে উইকেট নেন।

‘এ’ গ্রুপ থেকে পাকিস্তান শীর্ষে থেকে এবং ভারত দুইয়ে থেকে সুপার ফোর নিশ্চিত করলো। নেপাল কোনো পয়েন্ট না পেয়ে আসর শেষ করলো। অন্যদিকে ‘বি’ গ্রুপ থেকে বাংলাদেশ সুপার ফোর নিশ্চিত করেছে। ওই গ্রুপের বাকি দলের জন্য অপেক্ষা করতে হবে আগামীকাল আফগান-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ পর্যন্ত।

নিউজটি শেয়ার করুন

এশিয়া কাপের সুপার ফোরে ভারত

আপডেট সময় : ০৬:৪৫:৩৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩

বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে নেপালকে ১০ উইকেটে হারিয়ে এশিয়া কাপের সুপার ফোরে উঠেছে ভারত। বৃষ্টির কারণে ভারত-পাকিস্তান মহারণ ভেস্তে গিয়েছিল। নেপালের বিপক্ষেও সেই আশঙ্কা ছিল। কাট-অফ সময়ের ৫ মিনিট আগে খেলা শুরু করেন আম্পায়ারেরা।

প্রথমে ভারতের সামনে টার্গেট ছিল ৫০ ওভারে ২৩১ রান। পরে বৃষ্টির কারণে লক্ষ্য কমে দাঁড়ায় ২৩ ওভারে ১৪৫ রান। আরামসে সেই রান তুলে ফেলেনে রোহিত শর্মারা। ফলে ৩ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপ এ থেকে দ্বিতীয় দল হিসেবে সুপার ফোরে গেলো ভারত। এই গ্রুপ থেকে প্রথম দল হিসেবে জায়গা করেছে পাকিস্তান। আর পাকিস্তানের পরে এবার ভারতের কাছে হেরে এশিয়া কাপ থেকে বিদায় নিলো নেপাল।

নবাগত নেপাল আগে ব্যাটিং করে ভারতের বোলিং লাইনের বেশ ভালো পরীক্ষা নেয়। নির্ধারিত ৫০ ওভারের মধ্যে ৪৮.২ ওভার ব্যাটিং করে। সবকটি উইকেট হারিয়ে ২৩০ রান তোলে। বৃষ্টি বাধায় পরিধি ছোট আসা ম্যাচে ভারতের সামনে ২৩ ওভারে ১৪৫ রানের লক্ষ্য দাঁড়ায়। দুই ওপেনার রোহিত শর্মা ও শুভমান গিল জুটিতেই জয় নিশ্চিত করে ভারত।

রোহিম-গিলের জুটি ২০.১ ওভার ব্যাটিং করে ১৪৭ রানে জয়ের বন্দরে তরী নোঙর করে। রোহিত ৫৯ বলে ৭৪ এর শুভমান ৬২ বলে ৬৭ রানে অপরাজিত ছিলেন। নেপালের বোলাররা কোনো সফলতা পাননি।

এর আগে সোমবার (৪ সেপ্টেম্বর) শ্রীলঙ্কার পাল্লেকেলেতে সর্বোচ্চ সাত বারের এশিয়া কাপ জয়ী ভারতের সামনে ফাইটিং স্কোর দাঁড় করায় নবাগত নেপাল। উদ্বোধনী জুটিতে কুশাল ভারতেল ও আসিফ শেখ মিলে তোলেন ৬৫ রান। শেষ পর্যন্ত সবকটি উইকেট হারিয়ে নেপাল থামে ২৩০ রানে।

দুই ওপেনারের মধ্যে আসিফ ফিফটির দেখা পান। আউট হন ৫৮ রানে। আরেক ওপেনার কুশাল ৩৮ রান করেন। এছাড়া কামি ৪৮, দীপেন্দ্র ২৯ ও গুলশান ২৩ রান করেন।

ভারতের হয়ে বল হাতে জাদেজা ৪০ রানে ৩টি উইকেট নেন। মোহাম্মদ সিরাজ ৬১ রানে ৩টি শিকার করেন। এছাড়া শামি, পান্ডিয়া ও শার্দুল ঠাকুর একটি করে উইকেট নেন।

‘এ’ গ্রুপ থেকে পাকিস্তান শীর্ষে থেকে এবং ভারত দুইয়ে থেকে সুপার ফোর নিশ্চিত করলো। নেপাল কোনো পয়েন্ট না পেয়ে আসর শেষ করলো। অন্যদিকে ‘বি’ গ্রুপ থেকে বাংলাদেশ সুপার ফোর নিশ্চিত করেছে। ওই গ্রুপের বাকি দলের জন্য অপেক্ষা করতে হবে আগামীকাল আফগান-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ পর্যন্ত।