ঢাকা ১২:৩৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্টের সাথে রাষ্ট্রপতির বৈঠক

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় : ০৬:১০:০০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৩৭৮ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তায় আসিয়ান শীর্ষ সম্মেলনের ফাঁকে দেশটির প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদোর সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করেছেন রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন৷

মঙ্গলবার (৫ই সেপ্টেম্বর) জাকার্তায় আসিয়ানের ৪৩তম শীর্ষ সম্মেলনে যোগদান শেষে এ বৈঠক হয়।

এ সময় দুদেশের বাণিজ্যকে কীভাবে এগিয়ে নেয়া যায়, সে বিষয়ে আলোচনার পাশাপাশি দ্বিপাক্ষিক বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ককে আরও গভীর করা নিয়েও কথা বলেন তারা। যে কোন বিষয়ে বাংলাদেশকে সহযোগিতা দেয়ারও আশ্বাস দেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো।

ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্টের বিশেষ আমন্ত্রণে সংস্থাটির এবারের শীর্ষ সম্মেলনে যোগ দেন রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন। মঙ্গলবার সকালে জাকার্তা কনভেনশন সেন্টারে পৌঁছান রাষ্ট্রপতি ও তার স্ত্রী অধ্যাপক ড. রেবেকা সুলতানা। তিনদিনব্যাপী এ সম্মেলনে আসিয়ানের সদস্য ও সহযোগী দেশগুলো ছাড়াও একাধিক দেশের সরকার ও রাষ্ট্রপ্রধানরা অংশ নিচ্ছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্টের সাথে রাষ্ট্রপতির বৈঠক

আপডেট সময় : ০৬:১০:০০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩

ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তায় আসিয়ান শীর্ষ সম্মেলনের ফাঁকে দেশটির প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদোর সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করেছেন রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন৷

মঙ্গলবার (৫ই সেপ্টেম্বর) জাকার্তায় আসিয়ানের ৪৩তম শীর্ষ সম্মেলনে যোগদান শেষে এ বৈঠক হয়।

এ সময় দুদেশের বাণিজ্যকে কীভাবে এগিয়ে নেয়া যায়, সে বিষয়ে আলোচনার পাশাপাশি দ্বিপাক্ষিক বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ককে আরও গভীর করা নিয়েও কথা বলেন তারা। যে কোন বিষয়ে বাংলাদেশকে সহযোগিতা দেয়ারও আশ্বাস দেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো।

ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্টের বিশেষ আমন্ত্রণে সংস্থাটির এবারের শীর্ষ সম্মেলনে যোগ দেন রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন। মঙ্গলবার সকালে জাকার্তা কনভেনশন সেন্টারে পৌঁছান রাষ্ট্রপতি ও তার স্ত্রী অধ্যাপক ড. রেবেকা সুলতানা। তিনদিনব্যাপী এ সম্মেলনে আসিয়ানের সদস্য ও সহযোগী দেশগুলো ছাড়াও একাধিক দেশের সরকার ও রাষ্ট্রপ্রধানরা অংশ নিচ্ছেন।