ঢাকা ০৭:০৭ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ২১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी
ব্রেকিং নিউজ ::
রমাজান মাস উপলক্ষে আগামী ১২ই মার্চ থেকে ৭১ নিউজ বিডির হোম পেজে লাইভ টিভি চালু হবে। ৭১ নিউজ টিভিতে সাহরি এবং ইফতারের আগে লাইভ ইসলামী অনুষ্ঠান ও আযান সম্প্রচার করা হবে।

ওয়াগনারকে ‘সন্ত্রাসী গোষ্ঠী’ হিসেবে ঘোষণা করবে যুক্তরাজ্য

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৬:৩২:৪৭ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৪১২ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

রাশিয়ান ভাড়াটে বাহিনী ওয়াগনারকে একটি ‘সন্ত্রাসী গোষ্ঠী’ হিসেবে ঘোষণা করবে যুক্তরাজ্য। এই গোষ্ঠীর সদস্য হওয়া বা সমর্থন করা অবৈধ হবে গণ্য হবে বলে জানায় দেশটি। আজ বুধবার ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ খবর জানানো হয়।

ওয়াগনারকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করার জন্য পার্লামেন্টে একটি খসড়া প্রস্তাব পেশ করা হবে। এর মাধ্যমে এই গোষ্ঠীর সকল সম্পদকে সন্ত্রাসী সম্পত্তি হিসেবে গণ্য এবং বাজেয়াপ্ত করা যাবে।

যুক্তরাজ্যের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সচিব সুয়েলা ব্র্যাভারম্যান বলেছেন, ‘ওয়াগনার হিংসাত্মক এবং ধ্বংসাত্মক…। এই গোষ্ঠী ভ্লাদিমির পুতিনের রাশিয়ার একটি সামরিক হাতিয়ার।’

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সচিব বলেন, ‘ইউক্রেন এবং আফ্রিকায় এই গোষ্ঠীর কাজ বৈশ্বিক নিরাপত্তার জন্য হুমকির।’

সুয়েলা ব্র্যাভারম্যান আরও জানান, ক্রেমলিনের রাজনৈতিক লক্ষ্য পূরণের জন্য ওয়াগনারের অব্যাহত অস্থিতিশীল কর্মকাণ্ড অব্যাহত রয়েছে। খুব সহজ কথা তারা সন্ত্রাসী এবং যুক্তরাজ্যের আইনে এটি স্পষ্ট করে।

তিনি আরও জানান, ওয়াগনার ইউক্রেনে রাশিয়ার আগ্রাসনের পাশাপাশি সিরিয়া, লিবিয়া ও মালিসহ আফ্রিকার দেশগুলিতে কাজ করার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে।

এ ছাড়া এই গোষ্ঠীর সদস্যদের বিরুদ্ধে ইউক্রেনের নাগরিকদের হত্যা ও নির্যাতনসহ একাধিক অপরাধের অভিযোগ রয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

ওয়াগনারকে ‘সন্ত্রাসী গোষ্ঠী’ হিসেবে ঘোষণা করবে যুক্তরাজ্য

আপডেট সময় : ০৬:৩২:৪৭ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩

রাশিয়ান ভাড়াটে বাহিনী ওয়াগনারকে একটি ‘সন্ত্রাসী গোষ্ঠী’ হিসেবে ঘোষণা করবে যুক্তরাজ্য। এই গোষ্ঠীর সদস্য হওয়া বা সমর্থন করা অবৈধ হবে গণ্য হবে বলে জানায় দেশটি। আজ বুধবার ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ খবর জানানো হয়।

ওয়াগনারকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করার জন্য পার্লামেন্টে একটি খসড়া প্রস্তাব পেশ করা হবে। এর মাধ্যমে এই গোষ্ঠীর সকল সম্পদকে সন্ত্রাসী সম্পত্তি হিসেবে গণ্য এবং বাজেয়াপ্ত করা যাবে।

যুক্তরাজ্যের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সচিব সুয়েলা ব্র্যাভারম্যান বলেছেন, ‘ওয়াগনার হিংসাত্মক এবং ধ্বংসাত্মক…। এই গোষ্ঠী ভ্লাদিমির পুতিনের রাশিয়ার একটি সামরিক হাতিয়ার।’

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সচিব বলেন, ‘ইউক্রেন এবং আফ্রিকায় এই গোষ্ঠীর কাজ বৈশ্বিক নিরাপত্তার জন্য হুমকির।’

সুয়েলা ব্র্যাভারম্যান আরও জানান, ক্রেমলিনের রাজনৈতিক লক্ষ্য পূরণের জন্য ওয়াগনারের অব্যাহত অস্থিতিশীল কর্মকাণ্ড অব্যাহত রয়েছে। খুব সহজ কথা তারা সন্ত্রাসী এবং যুক্তরাজ্যের আইনে এটি স্পষ্ট করে।

তিনি আরও জানান, ওয়াগনার ইউক্রেনে রাশিয়ার আগ্রাসনের পাশাপাশি সিরিয়া, লিবিয়া ও মালিসহ আফ্রিকার দেশগুলিতে কাজ করার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে।

এ ছাড়া এই গোষ্ঠীর সদস্যদের বিরুদ্ধে ইউক্রেনের নাগরিকদের হত্যা ও নির্যাতনসহ একাধিক অপরাধের অভিযোগ রয়েছে।