ঢাকা ১১:৪২ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১২ এপ্রিল ২০২৪, ২৯ চৈত্র ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

যুক্তরাজ্যে বন্ধ হয়ে গেল শতাধিক স্কুল

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৩:৪৭:১১ অপরাহ্ন, বুধবার, ৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৪৪১ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে যুক্তরাজ্যের শতাধিক স্কুল। গত সোমবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন দেশটির শিক্ষামন্ত্রী গিলিয়ান কিগ্যান। জরাজীর্ণ কংক্রিটের কারণে ভবনগুলো যেকোনো সময় ভেঙে পড়ার ঝুঁকিতে রয়েছে বলে জানান তিনি।

গিলিয়ান কিগ্যান জানান, যুক্তরাজ্যের ১৫ হাজার স্কুলভবনের মধ্যে ১০ শতাংশই ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। এর সঠিক সংখ্যা জানতে এরইমধ্যে মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে স্কুলগুলো পরিদর্শন করা হচ্ছে। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিশু এবং কর্মীরা নিরাপদ কিনা তা নিশ্চিত করার চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কিছুই নেই বলেও জানান তিনি।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, সংস্কারের অভাবে দেশটির অবকাঠামোগত ভবনগুলো নড়বড়ে হয়ে পড়ছে বলে অভিযোগ করে আসছে বিভিন্ন নাগরিক অধিকার সংস্থা। তবে সরকারের পক্ষ থেকে সে কথা আমলে না নেওয়ার অভিযোগ তাদের। তবে সম্প্রতি দেড় শতাধিক ভবন ঝূঁকিপূর্ণ ঘোষণা করা হয়।

ব্রিটিশ শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ঝুঁকির মুখে থাকা ১০৪টি স্কুলভবনের সবগুলোই রিইনফোর্সড অটোক্লেভ অ্যারেটিড কংক্রিট (আরএএসি) নামের বিশেষ কংক্রিটে তৈরি। সাধারণ কংক্রিটের চেয়ে এই কংক্রিট বেশ হালকা। ১৯৬০ থেকে ১৯৮০ সাল পর্যন্ত ভবনের ছাদ, দেওয়াল, মেঝে প্রভৃতি নির্মাণে কংক্রিটের ব্যবহার বেশি হতো। কিন্তু পরে দুর্বল ও অনিরাপদ প্রমাণিত হওয়ায় এখন আর এই কংক্রিট ব্যবহার করা হয় না।

এদিকে আকস্মিকভাবে শতাধিক স্কুল বন্ধ করে দেওয়ায় সরকারের প্রতি ক্ষুব্ধ যুক্তরাজ্যের অনেক অভিভাবক ও স্কুলশিক্ষক।

নিউজটি শেয়ার করুন

যুক্তরাজ্যে বন্ধ হয়ে গেল শতাধিক স্কুল

আপডেট সময় : ০৩:৪৭:১১ অপরাহ্ন, বুধবার, ৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩

ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে যুক্তরাজ্যের শতাধিক স্কুল। গত সোমবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন দেশটির শিক্ষামন্ত্রী গিলিয়ান কিগ্যান। জরাজীর্ণ কংক্রিটের কারণে ভবনগুলো যেকোনো সময় ভেঙে পড়ার ঝুঁকিতে রয়েছে বলে জানান তিনি।

গিলিয়ান কিগ্যান জানান, যুক্তরাজ্যের ১৫ হাজার স্কুলভবনের মধ্যে ১০ শতাংশই ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। এর সঠিক সংখ্যা জানতে এরইমধ্যে মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে স্কুলগুলো পরিদর্শন করা হচ্ছে। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিশু এবং কর্মীরা নিরাপদ কিনা তা নিশ্চিত করার চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কিছুই নেই বলেও জানান তিনি।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, সংস্কারের অভাবে দেশটির অবকাঠামোগত ভবনগুলো নড়বড়ে হয়ে পড়ছে বলে অভিযোগ করে আসছে বিভিন্ন নাগরিক অধিকার সংস্থা। তবে সরকারের পক্ষ থেকে সে কথা আমলে না নেওয়ার অভিযোগ তাদের। তবে সম্প্রতি দেড় শতাধিক ভবন ঝূঁকিপূর্ণ ঘোষণা করা হয়।

ব্রিটিশ শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ঝুঁকির মুখে থাকা ১০৪টি স্কুলভবনের সবগুলোই রিইনফোর্সড অটোক্লেভ অ্যারেটিড কংক্রিট (আরএএসি) নামের বিশেষ কংক্রিটে তৈরি। সাধারণ কংক্রিটের চেয়ে এই কংক্রিট বেশ হালকা। ১৯৬০ থেকে ১৯৮০ সাল পর্যন্ত ভবনের ছাদ, দেওয়াল, মেঝে প্রভৃতি নির্মাণে কংক্রিটের ব্যবহার বেশি হতো। কিন্তু পরে দুর্বল ও অনিরাপদ প্রমাণিত হওয়ায় এখন আর এই কংক্রিট ব্যবহার করা হয় না।

এদিকে আকস্মিকভাবে শতাধিক স্কুল বন্ধ করে দেওয়ায় সরকারের প্রতি ক্ষুব্ধ যুক্তরাজ্যের অনেক অভিভাবক ও স্কুলশিক্ষক।