ঢাকা ১২:৪১ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

সন্ত্রাসী ও দুর্নীতিবাজ বিএনপির সঙ্গে দেশের জনগণ নেই : হানিফ

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ০১:০৫:১৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৪৭৩ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেছেন, সন্ত্রাসী ও দুর্নীতিবাজ বিএনপি-জামায়াত চক্রের সঙ্গে এ দেশের জনগণ নেই। এজন্যই তারা এখন বিদেশী প্রভুদের কাছে ধরনা দিচ্ছে। আজ বৃহষ্পতিবার দুপুরে কুষ্টিয়া সদর উপজেলা হলরুমে উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত অনুষ্ঠানে যোগদানের পূর্বে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহারস্বরূপ মাদ্রাসা ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে ট্যাবলেট বিতরণ, ক্যানসার, লিভার সিরোসিসসহ জটিল রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের আর্থিক সহায়তা, পল্লী উন্নয়ন ব্যাংকের আওতায় ক্ষুদ্রঋণের অর্থ প্রদান, কৃষকদের প্রণোদনা হিসেবে গ্রীষ্মকালীন সময়ের পেঁয়াজ ও মাসকালাইয়ের বীজ এবং সার বিনামূল্যে বিতরণ উপলক্ষ্যে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

মাহবুব উল আলম হানিফ বলেন, বিদেশী প্রভুরা এদেশের ক্ষমতার পরিবর্তন করতে পারবে না, কারণ এদেশের ক্ষমতার মালিক জনগণ। তাই জনগণ যতদিন চাইবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ততদিন ক্ষমতায় থাকবেন। পরে হানিফ কুষ্টিয়া সদর উপজেলা অডিটোরিয়ামে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন।

কুষ্টিয়া সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পার্থ প্রতীম শীলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় কুষ্টিয়া সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান আতা, সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আবু তৈয়ব বাদশা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আলোচনা সভায় মাহবুব উল আলম হানিফ বলেন, এ দেশে মুসলিম ধর্মের মানুষের জন্য সব চেয়ে বেশি কাজ করেছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। তিনিই প্রথম ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা সহ ব্যাপক কাজ করেছেন। তার সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজকে দেশে ৫৬০টি মডেল মসজিদ, কওমী মাদ্রাসাকে সরকারীকরণসহ মসজিদ ভিত্তিক ইসলামী সাংস্কৃতিক চর্চা কেন্দ্র স্থাপনসহ ব্যাপক উন্নয়ন করেছেন।

হানিফ বলেন, ড. ইউনুসের বিরুদ্ধে তারই কর্মচারীরা তাদের ন্যায্য পাওনা আদায়ের জন্য শ্রম আদালতে মামলা করেছে। সেই মামলায় এখন বিচার চলছে। এই বিষয়টা না জেনে যারা সরকারকে দোষারোপ করে বক্তব্য দিচ্ছে এটা আসলে পরিষ্কার ভাবে বোঝা যায় অর্থ দিয়ে বিবৃতি কেনা হয়েছে সরকারকে চাপ সৃষ্টি করে বিচার ব্যবস্থা বন্ধ করার জন্য, এছাড়া আর কিছুই নয়।

আগামী ডিসেম্বরে বর্তমান সরকারের মেয়াদ শেষ মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের এমন বক্তব্য প্রসঙ্গে হানিফ বলেন, মির্জা ফখরুল সাহেবের এতদিনে শুভবুদ্ধির উদয় হয়েছে। কথাই বলে না গাঁধা পানি খায় ঘোলা করে মির্জা ফখরুলের এখন সেই দশা হয়েছে। সবাই জানে এই সরকারের মেয়াদকাল আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন পর্যন্ত।

হানিফ আরও বলেন, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন সংবিধান অনুযায়ী এই ডিসেম্বরের শেষে অথবা জানুয়ারীর প্রথম সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হবে। স্বাভাবিকভাবে যখন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে তখন তো বর্তমান সরকারের মেয়াদ এমনিতেই শেষ হয়ে যাবে। এটাতো নতুন কিছু নয়। এটা সাংবিধানিক প্রক্রিয়া।

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, মির্জা ফখরুল সাহেবরা গত দুই বছর ধরে বলছেন এই সরকারের সাথে কোনো জনগণ নেই সব জনগণ তাদের সাথে। মির্জা ফখরুল সাহেবদের সাথে এত জনগণ আছে তাহলে তারা এই সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলন করে তার সফলতা অর্জন করতে পরে নাই কেন? তারা এখন আন্দোলনে ব্যর্থ হয়ে সকাল-বিকাল বিদেশি প্রভুদের কাছে ধর্ণা দিচ্ছে।

বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া মারা গেলে তার বিচার করা হবে মির্জা ফখরুলের এমন বক্তব্যের জবাবে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, যারা নিজ দলের প্রতিষ্ঠাতার হত্যার বিচার করে নাই তাদের কাছে কোন ব্যক্তির বিচার পাওয়ার কোন সুযোগ নাই।

পরে বিকেলে মাহবুব উল আলম হানিফ কুষ্টিয়া সরকারী কলেজে নব-নির্মিত নতুন ১০তলা ভবনের উদ্বোধন করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

সন্ত্রাসী ও দুর্নীতিবাজ বিএনপির সঙ্গে দেশের জনগণ নেই : হানিফ

আপডেট সময় : ০১:০৫:১৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩

আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেছেন, সন্ত্রাসী ও দুর্নীতিবাজ বিএনপি-জামায়াত চক্রের সঙ্গে এ দেশের জনগণ নেই। এজন্যই তারা এখন বিদেশী প্রভুদের কাছে ধরনা দিচ্ছে। আজ বৃহষ্পতিবার দুপুরে কুষ্টিয়া সদর উপজেলা হলরুমে উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত অনুষ্ঠানে যোগদানের পূর্বে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহারস্বরূপ মাদ্রাসা ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে ট্যাবলেট বিতরণ, ক্যানসার, লিভার সিরোসিসসহ জটিল রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের আর্থিক সহায়তা, পল্লী উন্নয়ন ব্যাংকের আওতায় ক্ষুদ্রঋণের অর্থ প্রদান, কৃষকদের প্রণোদনা হিসেবে গ্রীষ্মকালীন সময়ের পেঁয়াজ ও মাসকালাইয়ের বীজ এবং সার বিনামূল্যে বিতরণ উপলক্ষ্যে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

মাহবুব উল আলম হানিফ বলেন, বিদেশী প্রভুরা এদেশের ক্ষমতার পরিবর্তন করতে পারবে না, কারণ এদেশের ক্ষমতার মালিক জনগণ। তাই জনগণ যতদিন চাইবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ততদিন ক্ষমতায় থাকবেন। পরে হানিফ কুষ্টিয়া সদর উপজেলা অডিটোরিয়ামে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন।

কুষ্টিয়া সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পার্থ প্রতীম শীলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় কুষ্টিয়া সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান আতা, সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আবু তৈয়ব বাদশা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আলোচনা সভায় মাহবুব উল আলম হানিফ বলেন, এ দেশে মুসলিম ধর্মের মানুষের জন্য সব চেয়ে বেশি কাজ করেছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। তিনিই প্রথম ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা সহ ব্যাপক কাজ করেছেন। তার সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজকে দেশে ৫৬০টি মডেল মসজিদ, কওমী মাদ্রাসাকে সরকারীকরণসহ মসজিদ ভিত্তিক ইসলামী সাংস্কৃতিক চর্চা কেন্দ্র স্থাপনসহ ব্যাপক উন্নয়ন করেছেন।

হানিফ বলেন, ড. ইউনুসের বিরুদ্ধে তারই কর্মচারীরা তাদের ন্যায্য পাওনা আদায়ের জন্য শ্রম আদালতে মামলা করেছে। সেই মামলায় এখন বিচার চলছে। এই বিষয়টা না জেনে যারা সরকারকে দোষারোপ করে বক্তব্য দিচ্ছে এটা আসলে পরিষ্কার ভাবে বোঝা যায় অর্থ দিয়ে বিবৃতি কেনা হয়েছে সরকারকে চাপ সৃষ্টি করে বিচার ব্যবস্থা বন্ধ করার জন্য, এছাড়া আর কিছুই নয়।

আগামী ডিসেম্বরে বর্তমান সরকারের মেয়াদ শেষ মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের এমন বক্তব্য প্রসঙ্গে হানিফ বলেন, মির্জা ফখরুল সাহেবের এতদিনে শুভবুদ্ধির উদয় হয়েছে। কথাই বলে না গাঁধা পানি খায় ঘোলা করে মির্জা ফখরুলের এখন সেই দশা হয়েছে। সবাই জানে এই সরকারের মেয়াদকাল আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন পর্যন্ত।

হানিফ আরও বলেন, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন সংবিধান অনুযায়ী এই ডিসেম্বরের শেষে অথবা জানুয়ারীর প্রথম সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হবে। স্বাভাবিকভাবে যখন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে তখন তো বর্তমান সরকারের মেয়াদ এমনিতেই শেষ হয়ে যাবে। এটাতো নতুন কিছু নয়। এটা সাংবিধানিক প্রক্রিয়া।

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, মির্জা ফখরুল সাহেবরা গত দুই বছর ধরে বলছেন এই সরকারের সাথে কোনো জনগণ নেই সব জনগণ তাদের সাথে। মির্জা ফখরুল সাহেবদের সাথে এত জনগণ আছে তাহলে তারা এই সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলন করে তার সফলতা অর্জন করতে পরে নাই কেন? তারা এখন আন্দোলনে ব্যর্থ হয়ে সকাল-বিকাল বিদেশি প্রভুদের কাছে ধর্ণা দিচ্ছে।

বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া মারা গেলে তার বিচার করা হবে মির্জা ফখরুলের এমন বক্তব্যের জবাবে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, যারা নিজ দলের প্রতিষ্ঠাতার হত্যার বিচার করে নাই তাদের কাছে কোন ব্যক্তির বিচার পাওয়ার কোন সুযোগ নাই।

পরে বিকেলে মাহবুব উল আলম হানিফ কুষ্টিয়া সরকারী কলেজে নব-নির্মিত নতুন ১০তলা ভবনের উদ্বোধন করেন।