ঢাকা ১১:০১ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

মালিতে যাত্রীবাহী জাহাজ ও সেনা ঘাঁটিতে হামলা, নিহত ৬৪

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৬:৩১:৩০ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৪৭০ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

মালিতে একটি সেনা ঘাঁটি এবং নাইজার নদীতে একটি যাত্রীবাহী জাহাজে পৃথক দুটি হামলায় চালিয়েছে সশস্ত্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী। এতে কমপক্ষে ৪৯ জন বেসামরিক নাগরিক এবং ১৫ জন সেনা সদস্য নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া আনুমানিক ৫০ জন হামলাকারীও নিহত হয়েছেন।

দেশটির স্থানীয় সময় গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে পৃথক হামলা দুটি হামলা চালানো হয়। আজ শুক্রবার জার্মানভিত্তিক গণমাধ্যম ডয়চে ভেলের এক প্রতিবেদনে এ খবর জানানো হয়।

দেশটির কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, সন্দেহভাজন সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর দুটি পৃথক হামলা টিমবুক্টুর কাছে নদীতে থাকা জাহাজ এবং উত্তর গাও অঞ্চলের বাম্বাতে একটি সামরিক ঘাঁটি লক্ষ্য করে চালানো হয়। প্রাথমিক তথ্য অনুসারে, এ হামলায় ৪৯ বেসামরিক নাগরিক এবং ১৫ জন সেনা সদস্য নিহত হয়েছেন। এতে আরও অনেক আহত হয়েছেন।

মালি সরকারের দাবি, হামলার দায় স্বীকার করেছে চরমপন্থী ইসলামপন্থী বিদ্রোহী গোষ্ঠী জেএনআইএম। এটি আল-কায়েদার সঙ্গে যুক্ত একটি গোষ্ঠী।

দেশটির সেনাবাহিনী এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, হামলার জবাবে তাদের বাহিনী প্রায় ৫০ জন হামলাকারীকে হত্যা করেছে।

এদিকে এ হামলার ঘটনায় দেশটিতে তিন দিনের জাতীয় শোক ঘোষণা করেছে মালির অন্তর্বর্তী সরকার।

নিউজটি শেয়ার করুন

মালিতে যাত্রীবাহী জাহাজ ও সেনা ঘাঁটিতে হামলা, নিহত ৬৪

আপডেট সময় : ০৬:৩১:৩০ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩

মালিতে একটি সেনা ঘাঁটি এবং নাইজার নদীতে একটি যাত্রীবাহী জাহাজে পৃথক দুটি হামলায় চালিয়েছে সশস্ত্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী। এতে কমপক্ষে ৪৯ জন বেসামরিক নাগরিক এবং ১৫ জন সেনা সদস্য নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া আনুমানিক ৫০ জন হামলাকারীও নিহত হয়েছেন।

দেশটির স্থানীয় সময় গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে পৃথক হামলা দুটি হামলা চালানো হয়। আজ শুক্রবার জার্মানভিত্তিক গণমাধ্যম ডয়চে ভেলের এক প্রতিবেদনে এ খবর জানানো হয়।

দেশটির কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, সন্দেহভাজন সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর দুটি পৃথক হামলা টিমবুক্টুর কাছে নদীতে থাকা জাহাজ এবং উত্তর গাও অঞ্চলের বাম্বাতে একটি সামরিক ঘাঁটি লক্ষ্য করে চালানো হয়। প্রাথমিক তথ্য অনুসারে, এ হামলায় ৪৯ বেসামরিক নাগরিক এবং ১৫ জন সেনা সদস্য নিহত হয়েছেন। এতে আরও অনেক আহত হয়েছেন।

মালি সরকারের দাবি, হামলার দায় স্বীকার করেছে চরমপন্থী ইসলামপন্থী বিদ্রোহী গোষ্ঠী জেএনআইএম। এটি আল-কায়েদার সঙ্গে যুক্ত একটি গোষ্ঠী।

দেশটির সেনাবাহিনী এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, হামলার জবাবে তাদের বাহিনী প্রায় ৫০ জন হামলাকারীকে হত্যা করেছে।

এদিকে এ হামলার ঘটনায় দেশটিতে তিন দিনের জাতীয় শোক ঘোষণা করেছে মালির অন্তর্বর্তী সরকার।