ঢাকা ১২:০৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্তরা আশ্রয় নিলেন রোনালদোর হোটেলে

ক্রীড়া ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০২:৫৩:৪২ অপরাহ্ন, রবিবার, ১০ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৪৬১ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

মরক্কোয় ভূমিকম্পে অবকাঠামোর ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হওয়ায় একটুখানি আশ্রয়ের খোঁজে দেশটির মানুষ এক স্থান থেকে আরেক স্থানে ছুটছে। এই ভয়াবহ দুর্যোগের পরও যে সকল দালানকোঠা এখনও দাঁড়িয়ে আছে, সেখানেই মানুষ ছুটছে আশ্রয় নিতে। এই তালিকায় আছে পর্তুগিজ মহাতারকা ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর হোটেলও।

ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্ত শহর মারাক্কেশে রোনালদোর মালিকানাধীন একটি চার তারকা হোটেল রয়েছে। ভূমিকম্পের পর আশ্রয়প্রার্থী মানুষদের জন্য আশ্রয়কেন্দ্র হিসেবে খুলে দেওয়া হয়েছে এই হোটেলটিও। এমন খবর দিয়েছে মার্কা, এএসসহ বেশ কয়েকটি সংবাদমাধ্যম।

সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী মারাক্কেশ শহরের এই ভূমিকম্পের পর বেশ কিছু সংগঠন ও ব্যবসায়ী সংগঠন সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে। রোনালদো এই বিপদে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে। বিলাসবহুল পেস্তানা নামের এই হোটেলটি ঘর হারানো অসহায় মানুষদের আশ্রয়কেন্দ্র হয়ে উঠছে।

মারাক্কেশ মরক্কোর চতুর্থ বৃহত্তম শহর। পর্যটনকেন্দ্র হিসেবে বিশ্বজুড়ে এর খ্যাতি। রোনালদোর হোটেলটি মারাক্কেশের পুরনো শহরের এম অ্যাভেনিউতে অবস্থিত। মরক্কান নির্মাণশৈলিতে নির্মিত ১৭৪ কক্ষ বিশিষ্ট এই হোটেলটি সাধারণত পর্যটকদের আস্তানা হলেও এই মুহূর্তে সেটিকে আশ্রয়কেন্দ্রের রূপ দিয়ে ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্তদের থাকার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

এদিকে, শনিবার (৯ই সেপ্টেম্বর) মরক্কান জাতীয় দলের খেলোয়াড়রা ভূমিকম্পে হতাহতদের জন্য রক্তদান করেছেন। মরক্কোর তারকা ফুটবলার আশরাফ হাকিমি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লিখেছেন, ‘আমাদের দেশের মানুষ কঠিন সময় পার করছে। এটাই একে অন্যকে সাহায্য করার উপযুক্ত সময় যেন যতটা পারা যায় জীবন বাঁচানো সম্ভব হয়। যারা জীবন হারিয়েছে তাদের জন্য আমার হৃদয় নিংড়ানো শোক।’

নিউজটি শেয়ার করুন

ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্তরা আশ্রয় নিলেন রোনালদোর হোটেলে

আপডেট সময় : ০২:৫৩:৪২ অপরাহ্ন, রবিবার, ১০ সেপ্টেম্বর ২০২৩

মরক্কোয় ভূমিকম্পে অবকাঠামোর ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হওয়ায় একটুখানি আশ্রয়ের খোঁজে দেশটির মানুষ এক স্থান থেকে আরেক স্থানে ছুটছে। এই ভয়াবহ দুর্যোগের পরও যে সকল দালানকোঠা এখনও দাঁড়িয়ে আছে, সেখানেই মানুষ ছুটছে আশ্রয় নিতে। এই তালিকায় আছে পর্তুগিজ মহাতারকা ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর হোটেলও।

ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্ত শহর মারাক্কেশে রোনালদোর মালিকানাধীন একটি চার তারকা হোটেল রয়েছে। ভূমিকম্পের পর আশ্রয়প্রার্থী মানুষদের জন্য আশ্রয়কেন্দ্র হিসেবে খুলে দেওয়া হয়েছে এই হোটেলটিও। এমন খবর দিয়েছে মার্কা, এএসসহ বেশ কয়েকটি সংবাদমাধ্যম।

সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী মারাক্কেশ শহরের এই ভূমিকম্পের পর বেশ কিছু সংগঠন ও ব্যবসায়ী সংগঠন সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে। রোনালদো এই বিপদে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে। বিলাসবহুল পেস্তানা নামের এই হোটেলটি ঘর হারানো অসহায় মানুষদের আশ্রয়কেন্দ্র হয়ে উঠছে।

মারাক্কেশ মরক্কোর চতুর্থ বৃহত্তম শহর। পর্যটনকেন্দ্র হিসেবে বিশ্বজুড়ে এর খ্যাতি। রোনালদোর হোটেলটি মারাক্কেশের পুরনো শহরের এম অ্যাভেনিউতে অবস্থিত। মরক্কান নির্মাণশৈলিতে নির্মিত ১৭৪ কক্ষ বিশিষ্ট এই হোটেলটি সাধারণত পর্যটকদের আস্তানা হলেও এই মুহূর্তে সেটিকে আশ্রয়কেন্দ্রের রূপ দিয়ে ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্তদের থাকার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

এদিকে, শনিবার (৯ই সেপ্টেম্বর) মরক্কান জাতীয় দলের খেলোয়াড়রা ভূমিকম্পে হতাহতদের জন্য রক্তদান করেছেন। মরক্কোর তারকা ফুটবলার আশরাফ হাকিমি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লিখেছেন, ‘আমাদের দেশের মানুষ কঠিন সময় পার করছে। এটাই একে অন্যকে সাহায্য করার উপযুক্ত সময় যেন যতটা পারা যায় জীবন বাঁচানো সম্ভব হয়। যারা জীবন হারিয়েছে তাদের জন্য আমার হৃদয় নিংড়ানো শোক।’