ঢাকা ১২:১৭ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

ইউক্রেনকে এফ-সিক্সটিন যুদ্ধবিমান দিলে সংঘাত বাড়বে: পুতিন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৭:১৩:৫৬ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৪৬৩ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ইউক্রেনকে এফ-সিক্সটিন যুদ্ধবিমান সরবরাহ করলে, সংঘাত বাড়বে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। গতকাল মঙ্গলবার ইস্টার্ন ইকোনমিক ফোরামে দেওয়া বক্তব্যে তিনি আরও বলেন, পশ্চিমারা বিশ্বের অর্থনৈতিক ব্যবস্থাকে ধ্বংস করছে। সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে মামলাকে উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলেও মন্তব্য পুতিনের।

আকাশ প্রতিরক্ষায় সক্ষমতা বাড়াতে আমেরিকার তৈরি এফ-সিক্সটিন যুদ্ধবিমান সরবরাহে, বছর খানেক আগে প্রস্তাব করে ইউক্রেন। রাশিয়ার সঙ্গে যুদ্ধ আরও ভয়াবহ হতে পারে, এমন শঙ্কায় আমেরিকা ও মিত্ররা ইউক্রেনের এই প্রস্তাব শুরুতে নাকচ করে। তবে পরে অনুমতি দেয় মার্কিন প্রশাসন।

এরইমধ্যে ইউক্রেনের পাইলটদের এফ-সিক্সটিন চালানোর প্রশিক্ষণ শুরু হয়েছে। এ পরিস্থিতিতে, সংঘাত কমবে না বলে সতর্ক করেছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট।

ভ্লাদিমির পুতিন বলেন, “ইউক্রেনের পাল্টা অভিযান কোনো ফল দিচ্ছে না। বরং কিয়েভের কারণেই হতাহত ও ক্ষয়ক্ষতি বাড়ছে। ইউক্রেনকে মার্কিন যুদ্ধবিমান এফ-সিক্সটিন সরবরাহ করলে তাতে যুদ্ধের ফল বদলাবে না, বরং সংঘাত দীর্ঘ হবে। সব সম্পদ ও সরঞ্জাম ফুরিয়ে যাওয়ার পরই ইউক্রেন শান্তি আলোচনায় বসতে রাজি হবে”।

ইস্টার্ন ইকোনমিক ফোরামে দেওয়া বক্তব্যে, সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রসঙ্গ তোলেন পুতিন। বলেন, আমেরিকার রাজনীতিতে পচন ধরেছে।

“ট্রাম্পের বিরুদ্ধে চলমান মামলা এটাই প্রমাণ করে যে আমেরিকার রাজনীতি পচে গেছে, আর তা এখন সবারই জানা। ট্রাম্পের সাথে যা ঘটছে সবই রাজনৈতিক কারণে। আর সেটা হচ্ছে আমেরিকা ও সারা বিশ্বের জনগণের সামনে”- বলেন রুশ প্রেসিডেন্ট।

আগামীতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট পদে পরিবর্তন আসলেও, আমেরিকা-রাশিয়ার বর্তমান সম্পর্কে প্রভাব ফেলবে না বলেও মন্তব্য করেন পুতিন। অভিযোগ করেন, পশ্চিমা দেশগুলো বিশ্বের অর্থনৈতিক কাঠামো ধ্বংস করছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

ইউক্রেনকে এফ-সিক্সটিন যুদ্ধবিমান দিলে সংঘাত বাড়বে: পুতিন

আপডেট সময় : ০৭:১৩:৫৬ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২৩

ইউক্রেনকে এফ-সিক্সটিন যুদ্ধবিমান সরবরাহ করলে, সংঘাত বাড়বে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। গতকাল মঙ্গলবার ইস্টার্ন ইকোনমিক ফোরামে দেওয়া বক্তব্যে তিনি আরও বলেন, পশ্চিমারা বিশ্বের অর্থনৈতিক ব্যবস্থাকে ধ্বংস করছে। সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে মামলাকে উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলেও মন্তব্য পুতিনের।

আকাশ প্রতিরক্ষায় সক্ষমতা বাড়াতে আমেরিকার তৈরি এফ-সিক্সটিন যুদ্ধবিমান সরবরাহে, বছর খানেক আগে প্রস্তাব করে ইউক্রেন। রাশিয়ার সঙ্গে যুদ্ধ আরও ভয়াবহ হতে পারে, এমন শঙ্কায় আমেরিকা ও মিত্ররা ইউক্রেনের এই প্রস্তাব শুরুতে নাকচ করে। তবে পরে অনুমতি দেয় মার্কিন প্রশাসন।

এরইমধ্যে ইউক্রেনের পাইলটদের এফ-সিক্সটিন চালানোর প্রশিক্ষণ শুরু হয়েছে। এ পরিস্থিতিতে, সংঘাত কমবে না বলে সতর্ক করেছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট।

ভ্লাদিমির পুতিন বলেন, “ইউক্রেনের পাল্টা অভিযান কোনো ফল দিচ্ছে না। বরং কিয়েভের কারণেই হতাহত ও ক্ষয়ক্ষতি বাড়ছে। ইউক্রেনকে মার্কিন যুদ্ধবিমান এফ-সিক্সটিন সরবরাহ করলে তাতে যুদ্ধের ফল বদলাবে না, বরং সংঘাত দীর্ঘ হবে। সব সম্পদ ও সরঞ্জাম ফুরিয়ে যাওয়ার পরই ইউক্রেন শান্তি আলোচনায় বসতে রাজি হবে”।

ইস্টার্ন ইকোনমিক ফোরামে দেওয়া বক্তব্যে, সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রসঙ্গ তোলেন পুতিন। বলেন, আমেরিকার রাজনীতিতে পচন ধরেছে।

“ট্রাম্পের বিরুদ্ধে চলমান মামলা এটাই প্রমাণ করে যে আমেরিকার রাজনীতি পচে গেছে, আর তা এখন সবারই জানা। ট্রাম্পের সাথে যা ঘটছে সবই রাজনৈতিক কারণে। আর সেটা হচ্ছে আমেরিকা ও সারা বিশ্বের জনগণের সামনে”- বলেন রুশ প্রেসিডেন্ট।

আগামীতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট পদে পরিবর্তন আসলেও, আমেরিকা-রাশিয়ার বর্তমান সম্পর্কে প্রভাব ফেলবে না বলেও মন্তব্য করেন পুতিন। অভিযোগ করেন, পশ্চিমা দেশগুলো বিশ্বের অর্থনৈতিক কাঠামো ধ্বংস করছে।