ঢাকা ০৪:৩৭ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

ডুয়েল কারেন্সির ডেবিট কার্ড চালু হচ্ছে নভেম্বরে

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় : ০৪:০০:৪৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৪৩৪ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

আগামী ১ নভেম্বর থেকে জাতীয় ডেবিট কার্ড চালু করতে যাচ্ছে বাংলাদেশ ব্যাংক। মূলত বিদেশি কার্ড প্রতিষ্ঠানের ওপর নির্ভরতা হ্রাস ও বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভে চাপ কমাতে এ উদ্যোগ নিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

আজ সোমবার (১৮ সেপ্টেম্বর) বাংলাদেশ ব্যাংকের মুখপাত্র মেজবাউল হক এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, ‘আগামী ১ নভেম্বর থেকে এই কার্ড চালু করা হচ্ছে। প্রাথমিকভাবে আটটি ব্যাংক নিয়ে পাইলটিং কার্যক্রম করা হচ্ছে এবং অভ্যন্তরীণ ব্যবহারের জন্য এটি চালু হবে। এর মাধ্যমেই ডুয়েল কারেন্সি (টাকা-রুপি) ব্যবহারের সুবিধাও দেওয়া হবে।

গত ২ জুন বাজেট পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশ ব্যাংকের পক্ষ থেকে ন্যাশনাল ডেবিট কার্ড চালুর উদ্যোগ নেওয়ার কথা জানান গভর্নর আব্দুর রউফ তালুকদার।

গভর্নর আব্দুর রউফ তালুকদার বলেন, ‘আমাদের দেশে ভিসা, মাস্টারকার্ড বা বাইরের কোম্পানিগুলোর ডেবিট কার্ড বা ক্রেডিট কার্ড আছে। আমাদের নিজস্ব কোনো কার্ড ছিল না। এগুলোর ব্যবহারে সীমাবদ্ধতা ছিল। এ ছাড়া সংশ্লিষ্ট ফি বাইরে চলে যায়। আমরা জাতীয় ডেবিট কার্ড তৈরি করছি। সব ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান এক কার্ড ব্যবহার করবে। এটার প্রচলন হলে আমরা মনে করি টাকার পরিবর্তে এই কার্ডের ব্যবহার বেড়ে যাবে।’

নিউজটি শেয়ার করুন

ডুয়েল কারেন্সির ডেবিট কার্ড চালু হচ্ছে নভেম্বরে

আপডেট সময় : ০৪:০০:৪৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩

আগামী ১ নভেম্বর থেকে জাতীয় ডেবিট কার্ড চালু করতে যাচ্ছে বাংলাদেশ ব্যাংক। মূলত বিদেশি কার্ড প্রতিষ্ঠানের ওপর নির্ভরতা হ্রাস ও বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভে চাপ কমাতে এ উদ্যোগ নিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

আজ সোমবার (১৮ সেপ্টেম্বর) বাংলাদেশ ব্যাংকের মুখপাত্র মেজবাউল হক এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, ‘আগামী ১ নভেম্বর থেকে এই কার্ড চালু করা হচ্ছে। প্রাথমিকভাবে আটটি ব্যাংক নিয়ে পাইলটিং কার্যক্রম করা হচ্ছে এবং অভ্যন্তরীণ ব্যবহারের জন্য এটি চালু হবে। এর মাধ্যমেই ডুয়েল কারেন্সি (টাকা-রুপি) ব্যবহারের সুবিধাও দেওয়া হবে।

গত ২ জুন বাজেট পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশ ব্যাংকের পক্ষ থেকে ন্যাশনাল ডেবিট কার্ড চালুর উদ্যোগ নেওয়ার কথা জানান গভর্নর আব্দুর রউফ তালুকদার।

গভর্নর আব্দুর রউফ তালুকদার বলেন, ‘আমাদের দেশে ভিসা, মাস্টারকার্ড বা বাইরের কোম্পানিগুলোর ডেবিট কার্ড বা ক্রেডিট কার্ড আছে। আমাদের নিজস্ব কোনো কার্ড ছিল না। এগুলোর ব্যবহারে সীমাবদ্ধতা ছিল। এ ছাড়া সংশ্লিষ্ট ফি বাইরে চলে যায়। আমরা জাতীয় ডেবিট কার্ড তৈরি করছি। সব ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান এক কার্ড ব্যবহার করবে। এটার প্রচলন হলে আমরা মনে করি টাকার পরিবর্তে এই কার্ডের ব্যবহার বেড়ে যাবে।’