ঢাকা ০৪:৩২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

এবার আমেরিকায় শিখ বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৭:১২:২৭ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৪ অক্টোবর ২০২৩
  • / ৩৯৮ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

কানাডায় শিখ নেতা হারদীপ সিং হত্যার পর কানাডার সঙ্গে ভারতের কূটনীতিক সম্পর্ক তলানিতে। এই হত্যায় ভারত সরকার জড়িত বলে দাবি করে কানাডা। এবার আমেরিকার নিউইয়র্কের রাস্তায় শিখ সম্প্রদায়ের এক বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। তবে এতে ভারত জড়িত কিনা তা জানা যায়নি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, গত সপ্তাহে নিউইয়র্কের কুইন্স এলাকায় ৬৬ বছর বয়সী জাসমির সিংকে পেটানো হয়। এর পর তাঁকে দ্রুত হাসপাতালে নেওয়া হলেও বাঁচানো যায়নি। তিনি ভারতীয়–আমেরিকান বলে জানা যায়।

গত বৃহস্পতিবারের এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে বেশ কয়েকজনের বিরুদ্ধে মামলা করার প্রস্তুতি নিচ্ছে জাসমির সিংয়ের পরিবার।

ডাক্তার দেখিয়ে বাসায় ফিরছিলেন জাসমির সিং ও তাঁর স্ত্রী। এ সময় তাঁর ওপর হামলা করা হয়। এই হামলায় গাড়ির চালকও জড়িত বলে জানা যায়। ঘটনার পরদিনই সেই চালককে আটক করে পুলিশ।

কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শী জানান, আরেকটি গাড়ি এসে জাসমিরের গাড়িকে ধাক্কা দিলে তিনি গাড়ি থেকে বেরিয়ে যান। তখন তাঁকে পেটাতে থাকেন আরেক ব্যক্তি। এতে আরও কয়েকজন যোগ দেন। জাসমিরের স্ত্রী পুলিশে ফোন দিলে চলে যান তাঁরা। হাসপাতালে নেওয়ার পর মারা যান তিনি।

নিউজটি শেয়ার করুন

এবার আমেরিকায় শিখ বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যা

আপডেট সময় : ০৭:১২:২৭ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৪ অক্টোবর ২০২৩

কানাডায় শিখ নেতা হারদীপ সিং হত্যার পর কানাডার সঙ্গে ভারতের কূটনীতিক সম্পর্ক তলানিতে। এই হত্যায় ভারত সরকার জড়িত বলে দাবি করে কানাডা। এবার আমেরিকার নিউইয়র্কের রাস্তায় শিখ সম্প্রদায়ের এক বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। তবে এতে ভারত জড়িত কিনা তা জানা যায়নি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, গত সপ্তাহে নিউইয়র্কের কুইন্স এলাকায় ৬৬ বছর বয়সী জাসমির সিংকে পেটানো হয়। এর পর তাঁকে দ্রুত হাসপাতালে নেওয়া হলেও বাঁচানো যায়নি। তিনি ভারতীয়–আমেরিকান বলে জানা যায়।

গত বৃহস্পতিবারের এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে বেশ কয়েকজনের বিরুদ্ধে মামলা করার প্রস্তুতি নিচ্ছে জাসমির সিংয়ের পরিবার।

ডাক্তার দেখিয়ে বাসায় ফিরছিলেন জাসমির সিং ও তাঁর স্ত্রী। এ সময় তাঁর ওপর হামলা করা হয়। এই হামলায় গাড়ির চালকও জড়িত বলে জানা যায়। ঘটনার পরদিনই সেই চালককে আটক করে পুলিশ।

কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শী জানান, আরেকটি গাড়ি এসে জাসমিরের গাড়িকে ধাক্কা দিলে তিনি গাড়ি থেকে বেরিয়ে যান। তখন তাঁকে পেটাতে থাকেন আরেক ব্যক্তি। এতে আরও কয়েকজন যোগ দেন। জাসমিরের স্ত্রী পুলিশে ফোন দিলে চলে যান তাঁরা। হাসপাতালে নেওয়ার পর মারা যান তিনি।