১০:২৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ২ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সংলাপের মধ্য দিয়ে অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন চাই : ড. কামাল

গণফোরামের ইমেরিটাস সভাপতি ও দেশের অন্যতম জ্যেষ্ঠ আইনজীবী ড. কামাল হোসেন বলেছেন, জাতীয় সংলাপের মধ্য দিয়ে অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন চাই। সেটা হলে সময় বুঝে আমাদের দল নির্বাচনে যাবে।

আজ মঙ্গলবার (১৪ নভেম্বর) রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে ড. কামাল হোসেন এসব কথা বলেন।

গণফোরামের বিশেষ জাতীয় কাউন্সিল ২০২৩–পরবর্তী পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা ও বিদ্যমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি সম্পর্কে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

এক প্রশ্নের জবাবে ড. কামাল হোসেন বলেন, ঐক্যকে আরও সুসংহত করে, সবার সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করে ঐকমত্যে আসতে হবে। সবাইকে নিয়ে নির্বাচনে যাওয়ার পরিবেশ তৈরি করতে হবে।

দেশে যে ভয়াবহ পরিস্থিতি চলছে, তার জন্য জনগণকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়ে কামাল হোসেন আরও বলেন, ‘ক্ষমতার মালিক হিসেবে জনগণকে শক্ত ভূমিকা রাখতে হবে। দেশকে বাঁচাতে হলে নিজেদের দায়িত্ব পালন করতে হবে।’

দুর্নীতির বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানিয়ে দলে তরুণ কর্মীদের যুক্ত করার আহ্বান জানিয়ে ড. কামাল বলেন, ‘একজন ক্ষুদ্র কর্মী হিসেবে আমি দলের সঙ্গে থাকব।’

সংবাদ সম্মেলেনে গণফোরামের সভাপতি মফিজুল ইসলাম খান কামাল বলেন, ‘দেশের মানুষ যে অত্যাচারের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে, সেখান থেকে তাঁদের মুক্ত করতে হবে। আমাদের দল নির্বাচনবিমুখ নয়, তবে নির্বাচনের পরিবেশ তৈরি করতে হবে।’

পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করে দলটির সাধারণ সম্পাদক মো. মিজানুর রহমান বলেন, একটি মহাসমাবেশকে কেন্দ্র করে যে পরিস্থিতি তৈরি করা হয়েছে, বিরোধীদের ওপর দমন–পীড়ন চলছে।

এসবের নিন্দা জানিয়ে বলেন, তফসিল ঘোষণার আগে নির্বাচনের পরিবেশ তৈরি করতে হবে। সংবাদ সম্মেলনে দলের কেন্দ্রীয় কমিটিসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা–কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

সংলাপের মধ্য দিয়ে অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন চাই : ড. কামাল

আপডেট : ০৪:৪১:১১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ নভেম্বর ২০২৩

গণফোরামের ইমেরিটাস সভাপতি ও দেশের অন্যতম জ্যেষ্ঠ আইনজীবী ড. কামাল হোসেন বলেছেন, জাতীয় সংলাপের মধ্য দিয়ে অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন চাই। সেটা হলে সময় বুঝে আমাদের দল নির্বাচনে যাবে।

আজ মঙ্গলবার (১৪ নভেম্বর) রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে ড. কামাল হোসেন এসব কথা বলেন।

গণফোরামের বিশেষ জাতীয় কাউন্সিল ২০২৩–পরবর্তী পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা ও বিদ্যমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি সম্পর্কে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

এক প্রশ্নের জবাবে ড. কামাল হোসেন বলেন, ঐক্যকে আরও সুসংহত করে, সবার সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করে ঐকমত্যে আসতে হবে। সবাইকে নিয়ে নির্বাচনে যাওয়ার পরিবেশ তৈরি করতে হবে।

দেশে যে ভয়াবহ পরিস্থিতি চলছে, তার জন্য জনগণকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়ে কামাল হোসেন আরও বলেন, ‘ক্ষমতার মালিক হিসেবে জনগণকে শক্ত ভূমিকা রাখতে হবে। দেশকে বাঁচাতে হলে নিজেদের দায়িত্ব পালন করতে হবে।’

দুর্নীতির বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানিয়ে দলে তরুণ কর্মীদের যুক্ত করার আহ্বান জানিয়ে ড. কামাল বলেন, ‘একজন ক্ষুদ্র কর্মী হিসেবে আমি দলের সঙ্গে থাকব।’

সংবাদ সম্মেলেনে গণফোরামের সভাপতি মফিজুল ইসলাম খান কামাল বলেন, ‘দেশের মানুষ যে অত্যাচারের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে, সেখান থেকে তাঁদের মুক্ত করতে হবে। আমাদের দল নির্বাচনবিমুখ নয়, তবে নির্বাচনের পরিবেশ তৈরি করতে হবে।’

পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করে দলটির সাধারণ সম্পাদক মো. মিজানুর রহমান বলেন, একটি মহাসমাবেশকে কেন্দ্র করে যে পরিস্থিতি তৈরি করা হয়েছে, বিরোধীদের ওপর দমন–পীড়ন চলছে।

এসবের নিন্দা জানিয়ে বলেন, তফসিল ঘোষণার আগে নির্বাচনের পরিবেশ তৈরি করতে হবে। সংবাদ সম্মেলনে দলের কেন্দ্রীয় কমিটিসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা–কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।