ঢাকা ১১:২২ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

থানচি বাজারে পুলিশ ও বিজিবির সঙ্গে কেএনএফ এর গোলাগুলি

অনলাইন ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ১১:৪৪:৩৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ এপ্রিল ২০২৪
  • / ৩৯৪ বার পড়া হয়েছে
৭১ নিউজ বিডির সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

বান্দরবানের থানচি বাজারে ফের তাণ্ডব চালাচ্ছে কুকি চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট (কেএনএফ)। চলছে মুহুর্মুহু গোলাগুলি। বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) রাত ৯টার দিকে এ গোলাগুলির খবর পাওয়া যায়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ মামুন। তিনি বলেন, বর্তমানে থানচি উপজেলার থানচি বাজারের থানার পাশে এবং হাসপাতালের পেছনে গোলাগুলি চলছে। কিছুক্ষণ পর পরই থেমে থেমে গোলাগুলি চলছে। সশস্ত্র সংগঠনের সঙ্গে পুলিশ ও বিজিবির প্রচণ্ড গোলাগুলি চলছে।

ইউএনও মোহাম্মদ মামুন আরও বলেন, ধারণা করা হচ্ছে যারা গতকাল এসেছিল তারাই গোলাগুলি করছে।

কয়েকজন স্থানীয় বলেন, প্রচণ্ড গোলাগুলি চলছে। সন্ত্রাসীরা বাজারের বিদুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে চতুর্দিকে গুলিবর্ষণ করছে। থানচি থানার দিকে গুলি করে করে অগ্রসর হচ্ছে সন্ত্রাসীরা। এ সময় স্থানীয়রা আতঙ্কে ছোটাছুটি শুরু করে।

এদিকে বান্দরবানের রুমা শাখার সোনালী ব্যাংকের অপহৃত ম্যানেজার নেজাম উদ্দীনকে উদ্ধারের কথা জানিয়েছে র‍্যাব।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর র‍্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, র‍্যাবের মধ্যস্থতায় তাকে উদ্ধার করা হয়েছে। এ বিষয়ে বিস্তারিত পরে জানানো হবে।

থানচি বাজারের ২০০ থেকে ৩০০ গজের ভেতরেই রয়েছে থানচি থানা, একটি বিজিবি ক্যাম্প এবং থানচি বাজারের শেষ মাথায় রয়েছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর একটি চেকপোস্ট।

অন্যদিকে রুমা ও থানচি উপজেলায় ব্যাংক লুট ও অপহরণের পর কুকি চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট কেএনএফের সঙ্গে সব ধরনের সংলাপ ও যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে শান্তি প্রতিষ্ঠা কমিটি। সেই সাথে এ ঘটনার জন্য নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন কমিটির সদস্যরা।

বৃহস্পতিবার সকালে বান্দরবান জেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে কমিটির সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্যশৈহ্লা সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান। বৈঠকে শান্তি প্রতিষ্ঠা কমিটির সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

সম্মেলনে তিনি দীর্ঘদিন ধরে কেএনএফ ও শান্তি প্রতিষ্ঠা কমিটির সঙ্গে আলোচনা এবং তাদের সঙ্গে শান্তি প্রতিষ্ঠা কমিটির বর্তমান অবস্থা তুলে ধরেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

থানচি বাজারে পুলিশ ও বিজিবির সঙ্গে কেএনএফ এর গোলাগুলি

আপডেট সময় : ১১:৪৪:৩৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ এপ্রিল ২০২৪

বান্দরবানের থানচি বাজারে ফের তাণ্ডব চালাচ্ছে কুকি চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট (কেএনএফ)। চলছে মুহুর্মুহু গোলাগুলি। বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) রাত ৯টার দিকে এ গোলাগুলির খবর পাওয়া যায়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ মামুন। তিনি বলেন, বর্তমানে থানচি উপজেলার থানচি বাজারের থানার পাশে এবং হাসপাতালের পেছনে গোলাগুলি চলছে। কিছুক্ষণ পর পরই থেমে থেমে গোলাগুলি চলছে। সশস্ত্র সংগঠনের সঙ্গে পুলিশ ও বিজিবির প্রচণ্ড গোলাগুলি চলছে।

ইউএনও মোহাম্মদ মামুন আরও বলেন, ধারণা করা হচ্ছে যারা গতকাল এসেছিল তারাই গোলাগুলি করছে।

কয়েকজন স্থানীয় বলেন, প্রচণ্ড গোলাগুলি চলছে। সন্ত্রাসীরা বাজারের বিদুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে চতুর্দিকে গুলিবর্ষণ করছে। থানচি থানার দিকে গুলি করে করে অগ্রসর হচ্ছে সন্ত্রাসীরা। এ সময় স্থানীয়রা আতঙ্কে ছোটাছুটি শুরু করে।

এদিকে বান্দরবানের রুমা শাখার সোনালী ব্যাংকের অপহৃত ম্যানেজার নেজাম উদ্দীনকে উদ্ধারের কথা জানিয়েছে র‍্যাব।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর র‍্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, র‍্যাবের মধ্যস্থতায় তাকে উদ্ধার করা হয়েছে। এ বিষয়ে বিস্তারিত পরে জানানো হবে।

থানচি বাজারের ২০০ থেকে ৩০০ গজের ভেতরেই রয়েছে থানচি থানা, একটি বিজিবি ক্যাম্প এবং থানচি বাজারের শেষ মাথায় রয়েছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর একটি চেকপোস্ট।

অন্যদিকে রুমা ও থানচি উপজেলায় ব্যাংক লুট ও অপহরণের পর কুকি চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট কেএনএফের সঙ্গে সব ধরনের সংলাপ ও যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে শান্তি প্রতিষ্ঠা কমিটি। সেই সাথে এ ঘটনার জন্য নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন কমিটির সদস্যরা।

বৃহস্পতিবার সকালে বান্দরবান জেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে কমিটির সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্যশৈহ্লা সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান। বৈঠকে শান্তি প্রতিষ্ঠা কমিটির সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

সম্মেলনে তিনি দীর্ঘদিন ধরে কেএনএফ ও শান্তি প্রতিষ্ঠা কমিটির সঙ্গে আলোচনা এবং তাদের সঙ্গে শান্তি প্রতিষ্ঠা কমিটির বর্তমান অবস্থা তুলে ধরেন।