১০:৪২ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ২ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ডোপ টেস্টে পজিটিভ পগবা?

  • ক্রীড়া ডেস্ক
  • আপডেট : ০৪:৫৬:০৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ১১ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • ১৬১ দেখেছেন

অভিযোগটা এখনো প্রমাণিত হয়নি, নিজের পক্ষে যুক্তি দেয়ার সুযোগও পাবেন পল পগবা। তবে ইউভেন্তুসের ৩০ বছর বয়সী ফরাসি মিডফিল্ডারের বিরুদ্ধে অভিযোগটা গুরুতর। ইতালিয়ান সংবাদমাধ্যম গাজেত্তা দেল্লো স্পোর্ত, করিয়েরে দেল্লো স্পোর্ত, সংবাদমাধ্যম এএনএসএ-সহ অনেক সংবাদমাধ্যমই জানাচ্ছে, ডোপ টেস্টে পজিটিভ হয়েছেন পগবা‍!

মৌসুমের শুরুতে উদিনেসের বিপক্ষে ইউভেন্তুসের ম্যাচের পর নিয়মমাফিক ডোপ টেস্টেই পগবার শরীরে বাড়তি মাত্রায় টেস্টোস্টেরন পাওয়া গেছে বলে অভিযোগ। ইউভেন্তুসের ৩-০ গোলে জেতা সে ম্যাচে পগবা মাঠে নামেননি, বেঞ্চেই ছিলেন। কিন্তু ম্যাচের পর সাধারণ প্রক্রিয়া মেনে দ্বৈবচয়ন পদ্ধতিতে নির্বাচিত খেলোয়াড়দের একজন ছিলেন পগবা। সে রিপোর্টেই তাঁর শরীরে বাড়তি মাত্রায় টেস্টোস্টেরন পাওয়া গেছে।

যদিও এখনো অভিযোগ নিয়ে একেবারে হা-হুতাশ করার কিছু আসেনি পগবা, ফ্রান্স বা ইউভেন্তুস সমর্থকদের। ফুটবল ইতালিয়া জানাচ্ছে, দ্বিতীয় রাউন্ড পরীক্ষা হবে, সেখানেও পগবার শরীরে বাড়তি মাত্রায় টেস্টোস্টেরন পাওয়া গেলে বলা যাবে যে তিনি ডোপ টেস্টে ব্যর্থ। পগবার এ নিয়ে আত্মপক্ষ সমর্থনের বা ব্যাখ্যার সুযোগও থাকবে।

তবে ডোপ টেস্টে ব্যর্থ হলে সেটা পগবার ক্যারিয়ারেরই সমাপ্তি ঘোষণা করে দিতে পারে। কারণ, গাজেত্তা দেল্লো স্পোর্ত জানাচ্ছে, টেস্টোস্টেরন কোনো থেরাপির অংশ ছাড়া নেয়া যায় না। সে কারণে পগবার শরীরে বাড়তি মাত্রায় টেস্টোস্টেরন পাওয়া মানে, তাঁকে সর্বোচ্চ ৪ বছরের জন্যও নিষিদ্ধ করা হতে পারে।

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড থেকে গত বছরের জুলাইয়ে ইউভেন্তুসে যাওয়ার পর থেকেই সময়টা একেবারে বাজে কাটছে পল পগবার। এই চোটে-সেই চোটে মাঠেই নামা হচ্ছে না। এ পর্যন্ত ইউভেন্তুসে দ্বিতীয় অধ্যায়ে ম্যাচই খেলেছেন মাত্র ১২টি, তাতে কোনো গোল নেই, অ্যাসিস্ট মাত্র একটি।

ডোপ টেস্টে পজিটিভ পগবা?

আপডেট : ০৪:৫৬:০৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ১১ সেপ্টেম্বর ২০২৩

অভিযোগটা এখনো প্রমাণিত হয়নি, নিজের পক্ষে যুক্তি দেয়ার সুযোগও পাবেন পল পগবা। তবে ইউভেন্তুসের ৩০ বছর বয়সী ফরাসি মিডফিল্ডারের বিরুদ্ধে অভিযোগটা গুরুতর। ইতালিয়ান সংবাদমাধ্যম গাজেত্তা দেল্লো স্পোর্ত, করিয়েরে দেল্লো স্পোর্ত, সংবাদমাধ্যম এএনএসএ-সহ অনেক সংবাদমাধ্যমই জানাচ্ছে, ডোপ টেস্টে পজিটিভ হয়েছেন পগবা‍!

মৌসুমের শুরুতে উদিনেসের বিপক্ষে ইউভেন্তুসের ম্যাচের পর নিয়মমাফিক ডোপ টেস্টেই পগবার শরীরে বাড়তি মাত্রায় টেস্টোস্টেরন পাওয়া গেছে বলে অভিযোগ। ইউভেন্তুসের ৩-০ গোলে জেতা সে ম্যাচে পগবা মাঠে নামেননি, বেঞ্চেই ছিলেন। কিন্তু ম্যাচের পর সাধারণ প্রক্রিয়া মেনে দ্বৈবচয়ন পদ্ধতিতে নির্বাচিত খেলোয়াড়দের একজন ছিলেন পগবা। সে রিপোর্টেই তাঁর শরীরে বাড়তি মাত্রায় টেস্টোস্টেরন পাওয়া গেছে।

যদিও এখনো অভিযোগ নিয়ে একেবারে হা-হুতাশ করার কিছু আসেনি পগবা, ফ্রান্স বা ইউভেন্তুস সমর্থকদের। ফুটবল ইতালিয়া জানাচ্ছে, দ্বিতীয় রাউন্ড পরীক্ষা হবে, সেখানেও পগবার শরীরে বাড়তি মাত্রায় টেস্টোস্টেরন পাওয়া গেলে বলা যাবে যে তিনি ডোপ টেস্টে ব্যর্থ। পগবার এ নিয়ে আত্মপক্ষ সমর্থনের বা ব্যাখ্যার সুযোগও থাকবে।

তবে ডোপ টেস্টে ব্যর্থ হলে সেটা পগবার ক্যারিয়ারেরই সমাপ্তি ঘোষণা করে দিতে পারে। কারণ, গাজেত্তা দেল্লো স্পোর্ত জানাচ্ছে, টেস্টোস্টেরন কোনো থেরাপির অংশ ছাড়া নেয়া যায় না। সে কারণে পগবার শরীরে বাড়তি মাত্রায় টেস্টোস্টেরন পাওয়া মানে, তাঁকে সর্বোচ্চ ৪ বছরের জন্যও নিষিদ্ধ করা হতে পারে।

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড থেকে গত বছরের জুলাইয়ে ইউভেন্তুসে যাওয়ার পর থেকেই সময়টা একেবারে বাজে কাটছে পল পগবার। এই চোটে-সেই চোটে মাঠেই নামা হচ্ছে না। এ পর্যন্ত ইউভেন্তুসে দ্বিতীয় অধ্যায়ে ম্যাচই খেলেছেন মাত্র ১২টি, তাতে কোনো গোল নেই, অ্যাসিস্ট মাত্র একটি।